রামগতি

নৌ পুলিশের ইনচার্জ ফেরদৌস আহম্মদের নেতৃত্বে লক্ষ্মীপুরের মেঘনা থেকে আট জেলে উদ্ধার

লক্ষ্মীপুরের মেঘনা থেকে আট জেলে উদ্ধার

ডালিম কুমার দাস টিটু ঃ লক্ষ্মীপুর রামগতির মেঘনা নদী থেকে ৮ জেলেকে জীবিত উদ্ধার করেছে রামগতির বড়খেরী নৌ পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (নিঃ) ফেরদৌস আহম্মদ। ১৩ সেপ্টেম্বর (মঙ্গলবার) রাতে ৯৯৯ থেকে কল আসার পর  প্রচন্ড বৃষ্টির মধ্যে  অফিসার ফোর্স সঙ্গে করে
জীবনের ঝুঁকি নিয়ে ছুটে যান । গভির রাতে প্রচন্ড ঝড়ের মধ্যে দূর্যোগপূর্ন আবহাওয়ায় জীবনের ঝুঁকি নিয়া চর-আলেকজান্ডারের চর আব্দুল্ল্যাহ  নদীর মাঝখানে অভিযান চালিয়ে তাদের জীবিত উদ্ধার করে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয় । তবে কেউ নিখোঁজ ছিলোনা। এসময় জেলেদের ব্যবহৃত জাল নৌকাও উদ্ধার করা হয় । স্থানীয়রা বলেন, প্রচন্ড ঝড় বৃষ্টি উপেক্ষা করে নদী থেকে  ৮ জেলেকে জীবিত উদ্ধার করে এক বড় ধরনের সাহসীকতার পরিচয় দিয়েছেন নৌ পুলিশের (আইসি) পরিদর্শক ফেরদৌস আহম্মদ। প্রতিদিনের মত জেলেরা নদীতে নৌকা নিয়ে জাল বসাতে গেলে আবহাওয়া খারাপ থাকায় নদী ছিলো উত্তাল নদীর ঢেউ এসে নৌকাটি ডুবে যায়। দুর থেকে একজন দেখে ৯৯৯ তে কল দিলে তাৎক্ষণিক ফোর্স নিয়ে ছুটে আসে রামগতি নৌ পুলিশের ইনচার্জ ফেরদৌস আহম্মদ। সবাই কে উদ্ধার করে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করে। ইনচার্জ ফেরদৌস আহম্মদ বলেন , আমাদের সবসময় বৈরী আবহাওয়ার সাথে চ্যালেঞ্জ করে নদীর তীরবর্তী মানুষ এবং জেলেদের  সেবা দিতে হয়। মঙ্গলবারও (১৩ সেপ্টেম্বর)  আমরা প্রস্তুত ছিলাম। রাতে যখন ৯৯৯ থেকে কল আসলো আমি আমার অফিসার ফোর্স নিয়ে দ্রুত ছুটে গেলাম। অভিযান চালিয়ে ৮ জেলেকে জীবিত উদ্ধার করতে সক্ষম হলাম। সেই সাথে নৌকা জাল ও উদ্ধার করে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেছি । আমি কখনো  দায়িত্ব পালনে অবহেলা করিনা। কারন আমার একটু  অবহেলায় অনেক বড় ক্ষতি হতে পারে। তাই চেষ্টা  করি দায়িত্ব পালনে অগ্রণী ভূমিকা রাখতে।
অভিযানে সাথে ছিলেন এএস আই বাবু রাখাইন, আবু তাহের, সেতু  বড়ুয়া।

Related Articles

how do you feel about this website ?

Back to top button
%d bloggers like this: