Home

লক্ষ্মীপুর টুমচরে পা হারিয়ে নিঃস্ব আমিনের মানবেতর জীবন

ডালিম কুমার দাস টিটু ঃ লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার টুমচর ইউনিয়নের হতদরিদ্র নুরুল আমিন। গ্যাংগ্রিন রোগে আক্রান্ত হয়ে ইতোমধ্যে তার একটি পা কেটে ফেলতে হয়েছে।

চিকিৎসা করাতে গিয়ে সহায় সম্বল হারিয়ে বর্তমানে নিঃস্ব হয়ে পড়েছেন তিনি। দুরারোগ্য এই ব্যাধিটি তার একটি পা কেড়ে নিলেও অপর পা নিয়ে কোনোরকমে বেঁচে আছেন।

তবে চিকিৎসক জানিয়েছেন, দ্রুত অপর পায়ের চিকিৎসা করানো না হলে সেটিও কেটে ফেলতে হবে। এতে প্রায় ৩ লাখ টাকার অধিক খরচ হতে পারে।

মানবেতর জীবনযাপন করা তার পরিবারের দাবি, সরকার ও বিত্তশালীরা সাহায্য করলে ঘুরে দাঁড়াতে পারবেন নুরুল আমিন।

এলাকাবাসীরা জানান, নুরুল আমিন পেশায় একজন ইটভাটা শ্রমিক ছিলেন। ৪ মেয়ে ও ১ ছেলে নিয়ে ছিল সুখের সংসার। ২ বছর আগে স্ত্রী মারা যায়। এরই মাঝে ইটভাটায় কাজ করাকালীন সময়ে গ্যাংগ্রিন রোগে আক্রান্ত হন। পায়ে পঁচন ধরলে স্থানীয়দের সহায়তায় ও পূর্ব পুরুষের রেখে যাওয়া সম্পত্তি বিক্রি করে চিকিৎসা করিয়েছেন। কিন্তু অপারেশন করে বাম পা কেটে ফেলতে হয়েছে। চিকিৎসকের পরামর্শ অতি দ্রুত যদি অপর পা টির চিকিৎসা করানো না হয় সেটিও কেটে ফেলতে হবে।

নুরুল আমিন বলেন, আমি বাঁচতে চাই। বর্তমানে অপর পায়ে সমস্যা দেখা দিয়েছে। চলাচলও করতে পারছি না। একটি হুইল চেয়ারও নেই। সমাজের উচ্চবিত্তদের কাছে আকুল আবেদন অসহায় এই পরিবারের জন্য এগিয়ে আসুন। মানবতার দৃষ্টান্ত স্থাপন করুন।

লক্ষ্মীপুর সমাজসেবা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মো. নুরুল ইসলাম বলেন, খোঁজ খবর নিয়ে পরিবারটিকে সহযোগিতা করার চেষ্টা করব।

নুরুল আমিনের সঙ্গে যোগাযোগের নম্বর – ০১৮৮৩ ১৩ ০০ ৬৩।

Related Articles

how do you feel about this website ?

Back to top button
%d bloggers like this: